বৃহস্পতিবার জানুয়ারি ২১, ২০২১ || ৭ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বয়স লুকিয়েছিলেন আফ্রিদি: সেঞ্চুরির রেকর্ড কি তবে ভুয়া?

খবর২৪ডেস্ক
ভক্তরা দিনের পর দিন তার চির তারুণ্যের রহস্য বের করার চেষ্টায় জীবন কাটিয়ে দিচ্ছে। কিন্তু বুড়ো হচ্ছেন না আফ্রিদি। ক্রিকেট বুট তুলে রাখার ৩ বছর পর শেষ পর্যন্ত রহস্যের যবনিকা পড়ল আত্মজীবনীতে। ‘গেম চেঞ্জার’ নামের ওই আত্মজীবনীতে নিজের আসল বয়স ফাঁস করছেন বুম বুম আফ্রিদি। তার আসল বয়স জানলে ভক্তদের কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়বে এটা নিশ্চিত। তারুণ্যের রহস্য তখন মহাবিস্ময় হিসেবে দেখা দেবে! একইসঙ্গে আফ্রিদির একটি রেকর্ড নিয়েও প্রশ্ন উঠতে বাধ্য।

এতদিন কাগজে-কলমে পাকিস্তানের এই সাবেক ক্রিকেটারের জন্মসাল ছিল ১৯৮০। কিন্তু এই ২০১৯ সালে এসে তার আত্মজীবনীতে আফ্রিদি স্বীকার করে নিলেন ১৯৮০ সালে নয়; তিনি জন্মেছেন আরও ৫ বছর আগে ১৯৭৫ সালে! যার অর্থ, ১৯৮০ সালের ১ মার্চ আফ্রিদির জন্মদিন বলে জানতেন ভক্তরা। এবার তা বদলে গেল। এ যেন ছিল রুমাল হয়ে গেল বেড়াল এর মতো ঘটনা! তবে ১৯৭৫ সালের কোন মাসে কোনদিন তার জন্ম সেটা নিয়ে আফ্রিদি কিছুই উল্লেখ করেননি আত্মজীবনীতে।

ক্রিকেট-বিশ্ব এত দিন জানত, ১৯৯৬ সালে নাইরোবিতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩৭ বলে সেঞ্চুরি করার সময় আফ্রিদির বয়স ছিল ১৬। যে রেকর্ড অক্ষত ছিল ১৭ বছর। কিন্তু আত্মজীবনীতে আফ্রিদি জানিয়েছেন, ‘আমার জন্ম ১৯৭৫ সালে। ফলে কাগজে-কলমে যে বয়স এত দিন গণ্য হত, তা ঠিক নয়। ১৯৯৬ সালে ওই রেকর্ড গড়ার ইনিংসের সময় আমার বয়স ১৬ ছিল না। তখন আমার বয়স ছিল ১৯। কর্তৃপক্ষ ভুল বয়স বলেছিল।’

কিন্তু তাতেও যে গোলকধাঁধা থাকছে আফ্রিদির বয়সে। ১৯৭৫ সালে যদি আফ্রিদির জন্ম হয়, তা হলে ১৯৯৬ সালে আফ্রিদির বয়স দাঁড়ায় ২১। কখনও তা ১৯ হতে পারে না। তবে এর উত্তর দেননি আফ্রিদি। নাইরোবির সেই সিরিজের সময় পাক অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ থেকে খেলে কিনিয়া এসেছিলেন আফ্রিদি। তাতে বোঝা যায়, জানা সত্ত্বেও বয়স ভাড়িয়ে অনূর্ধ্ব-১৯ দলে সে সময় খেলেছিলেন পাকিস্তানের এই সুদর্শন ক্রিকেটার।

২০১৬ সালে ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টির পরে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেন আফ্রিদি। ৩ বছর পরে প্রকাশিত হল তার এই আত্মজীবনী। যেখানে আফ্রিদি জন্মের বছর ঠিক করে বলার পরেও বয়স নিয়ে ধোঁয়াশা কাটছে না। কারণ, ২০১৬ সালে অবসরের সময় তার বয়স ৩৬ ছিল না। আফ্রিদির বয়স সেই সময় ছিল ৪১! আর বর্তমানে ৪৪ বছর বয়সী এই তারকা বিশ্বের বিভিন্ন ফ্যাঞ্চাইজি লিগে খেলে বেড়াচ্ছেন। কী তার সেই তারুণ্যের রহস্য?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *