সোমবার ফেব্রুয়ারি ১৯, ২০১৮ || ৭ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

২ মাস পরে ইন্টার মিলানের জয়

খবর২৪ডেস্ক
ফ্রেঞ্চ টিনএজার ইয়ান কারামোহের গোলে দুই মাস পরে জয়ের ধারায় ফিরেছে ইন্টার মিলান। রবিবার ঘরের মাঠ সান সিরোতে নয়জনের বোলোগনার বিপক্ষে ২-১ গোলের জয় তুলে নিয়েছে ইন্টার।

দুই মিনিটে প্রথম গোল করে স্বাগতিকদের এগিয়ে দিয়েছিলেন এডার মার্টিনস। ২৫ মিনিটে সাবেক ইন্টার মিলান তারকা রডরিগো পালাসিও বোলোগনার পক্ষে সমতা ফেরান। কিন্তু ৬৩ মিনিটে কারামোহ দুর্দান্ত এক গোলে দলের জয় নিশ্চিত করেন। ১৯ বছর বয়সী এই ফ্রেঞ্চ ফরোয়ার্ডো ইন্টারের হয়ে এটাই প্রথম মূল একাদশে খেলা। এর মাধ্যেমে গত ৩ ডিসেম্বরের পরে প্রথম তিন পয়েন্ট তুলে নিল লুসিয়ানো স্পালেত্তির দল।

এর আগে আট ম্যাচে মাত্র ৬ পয়েন্ট অর্জন করেছে ইন্টার। কালকের ম্যাচের পরে স্পালেত্তি বলেছেন, এই ধরনের পরিস্থিতি থেকে বের হয়ে আসা এতটা সহজ নয়। এবারের মৌসুমের শুরুটা আমাদের দারুণ হয়েছিল। সে কারণেই আমাদেরকে নিয়ে সমর্থকদের প্রত্যাশাও বেড়ে গিয়েছিল।

৬৮ মিনিটে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড পেয়ে ইব্রাহিম এমবায়ে মাঠ ত্যাগ করলে বোলোগনা ১০জনের দলে পরিণত হয়। ইনজুরি টাইমে ডিফেন্ডার এ্যাডাম মাসিনা লিসান্দ্রো লোপেজকে ফাউলের অপরাধে সরাসরি লাল কার্ড পেলে বাকি সময়টা নয়জনকে নিয়ে খেলতে হয়েছে বোলোগনাকে। ইন্টারের কোচ আরো বলেছেন, আজ আমরা সত্যিকার অর্থেই ভাল খেলেছি। আমরা প্রথমে এগিয়ে গিয়েছিলাম। ম্যাচে সমতা ফেরানোটা আমাদের ভুলের কারণেই হয়েছে। তবে শেষ পর্যন্ত ম্যাচ জিতেই আমরা বের হয়েছি।

এই জয়ে ইন্টার ২৪ ম্যাচে ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে উঠে এসেছে। চতুর্থ স্থানে থাকা রোমার থেকে ইন্টার মাত্র এক পয়েন্ট এগিয়ে রয়েছে। রবিবার দিনের শেষ ম্যাচে এক গোলে পিছিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত ঘরের মাঠ স্তাদিও অলিম্পিকোতে বেনেভেনটোকে ৫-২ গোলের বড় ব্যবধানে পরাজিত করেছে রোমা।

এদিকে টানা তৃতীয় পরাজয়ে তৃতীয় থেকে পঞ্চম স্থানে নেমে গেছে ল্যাজিও। শনিবার তার টেবিলের শীর্ষে থাকা নাপোলির কাছে ৪-১ গোলে বিধ্বস্ত হয়েছে। ফিওরেনটিনাকে ২-০ গোলে হারিয়ে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাস জয়ের ধারা ধরে রাখলেও নাপোলির থেকে বরাবরের মতোই এক পয়েন্ট পিছিয়ে দ্বিতীয় স্থানেই রয়েছে।

ইন্টারের শীর্ষ গোলদাতা মাওরো ইকার্দি ইনজুরির কারনে এখনো সাইডলাইনে থাকায় এন্টোনিও কানড্রেভার স্থানে কারামোহ মূল একাদশে সুযোগ পান। আর সেই সুযোগ পুরোপুরি কাজে লাগিয়েছেন এই ফ্রেঞ্চ তারকা। ক্রোয়েশিয়ান মার্সেলো ব্রোজোভিচের পাসে এডার যে গোলটি করেছিলেন তার পিছনেও কারামোহর অবদান ছিল। কিন্তু গত বছর ইন্টার ছেড়ে বোলোগনাতে যাওয়া পালাসিও ২৫ মিনিটে সমতা ফেরালে ম্যাচে উত্তেজনা দেখা দেয়। ৬৩ মিনিটে রাফিনহার সাথে বল আদান প্রদান করে বাম পায়ের জোড়ালো শটে কারামোহ দলের জয় নিশ্চিত করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *